কেয়ামত পুলসিরাত হাউজে কাউসার কি?

কেয়ামত পুলসিরাত হাউজে কাউসার কি?

উত্তর: কেয়ামত দিবসের হিসাব নিকাশ, দাড়িপাল্লায় আমলের ওজন, সকল অঙ্গ প্রত্যঙ্গের সাক্ষ্য প্রদান, পুলসিরাতের উপর দিয়ে অতিক্রম করা সত্য। পুলসিরাত জাহান্নাম পিঠের উপর প্রতিষ্ঠিত হবে। যা তরবারী অপেক্ষা ধারালো এবং চুল অপেক্ষা অধিক চিকন হবে।

যেদিন কেয়ামত প্রতিষ্ঠিত হবে, সেদিন আকাশ বিদীর্ণ হবে,  তারকারাজি ছুটে ছুটে পড়বে, সমুদ্র উত্তাল হবে| তখন মানুষ জানতে পারবে সে জীবনে কি করেছে| ভবিষ্যতের জন্য সে কি পাঠিয়েছে| এমন এক বিভীষিকাময় দিন সেদিন হবে যেদিন গায়ক তার বাজনা যন্ত্র ফেলে দৌড়াবে|

মাতা সন্তানকে বালতির মতো ফেলে দৌড়াবে, চতুর্দিকে জ্বলবে দাও দাও করে আগুন। সূর্য নিকটে চলে আসবে,  এই জমিন তামায় পরিণত হবে, মানুষ ছটফট করতে থাকবে। যে যত বড় গুনাহগার হবে তার ওপর ততো বড় বিপদ সেদিন চেপে আসবে।

সেদিন কেউ কারো মালিক হবে না। তার সম্পদ কোন কাজে আসবে না। কোনো নেতা কাজে আসবে না, কোন এমপি মন্ত্রী সেদিন বাচতে পারবেনা। সেদিন এক ভয়ঙ্কর দিন হবে। যে দিন প্রত্যেকেই ইয়া নাফসি হাই আমার জীবন হায় আমার জীবন বলতে থাকবে।

আর বারবার বলতে থাকবে, হে আল্লাহ আপনি যদি আমাদের আবার দুনিয়াতে পাঠাতেন! তাহলে আমরা বিশ্বাস স্থাপন করতাম, সৎ কাজ করতাম এবং আমাদের আমলনামা ভারী করার জন্য যথার্থ চেষ্টা করতাম। কিন্তু এই আফসোস আর কোনই কাজে আসবে না।

সেদিন মানুষ আফসোস করতে করতে তার হাতের নখ, তার আঙ্গুল এমনকি কেউ কেউ হাত খেয়ে ফেলবে কিন্তু সেদিন এই আফসোস তার কোনই কাজে আসবে না। সুতরাং কেয়ামতকে ভয় করুন আল্লাহকে ভয় করুন এবং আল্লাহর সামনে দাঁড়ানো কে ভয় করুন।

দ্বীনের পথে ফিরে আসুন নবীর পথে ফিরে আসুন যে পথ রাসূলে কারীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম দেখিয়েছেন সেই পথে আসুন।

কিছু লোক বিদ্যুৎ গতিতে

কিছু লোক বিদ্যুৎ গতিতে, কিছু দ্রুত ঘোরার মত আর কিছু লোক ধীরে ধীরে অতিক্রম করবে। কিছু লোক জাহান্নামে পড়ে যাবে। আম্বিয়ায়ে কেরাম, আউলিয়া ও আল্লাহর নেক বান্দাগণের সুপারিশ সত্য, হাউজে কাউসার সত্য। তার পানি দুধের চেয়ে অধিক সাদা মধুর চেয়ে অধিক মিষ্টি নক্ষত্রের মত তার পেয়ালা।

যে ব্যক্তি সে পানি হতে পান করবে, দ্বিতীয়বার আর সে পিপাসিত হবেনা।  আল্লাহ তাআলা ইচ্ছা করলে তওবা ছাড়াই গুনাহগারদের ক্ষমা করে দিতে পারেন। আর ইচ্ছা করলে সগিরা গুনাহের কারণেও শাস্তি দিতে পারেন।

যে ব্যক্তি নিষ্ঠার সাথে তওবা করবে, আল্লাহ তা’য়ালার ওয়াদা মোতাবেক অবশ্যই তাকে ক্ষমা করে দেওয়া হবে। কাফিরদের চিরকাল জাহান্নামে শাস্তি দেওয়া হবে।

কেয়ামত পুলসিরাত হাউজে কাউসার

হার্টের রোগে নামাজের ভূমিকা

আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

Spread the love

Leave a Comment